সেমিফাইনালে কোচকে পাশে পাবে না ভারত, স্টিমাচ লাল কার্ড পাওয়ায় রেফারি বদলের দাবী গাওলি ও ছেত্রীর

গতকাল সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের (Saff Championship) ভারত বনাম কুয়েত (India vs Kuwait) ম্যাচে ফের লাল কার্ড দেখেছেন ভারতীয় ফুটবল দলের প্রধান কোচ ইগর স্টিমাচ (Igor Stimac)। এই চ্যাম্পিয়নশিপের প্রথম ম্যাচেই পাকিস্তানের বিরুদ্ধেও লাল কার্ড দেখেছিলেন স্টিমাচ। সেই কারণে নেপালের বিরুদ্ধে ম্যাচে রিজার্ভ বেঞ্চে উপলব্ধ ছিলেন না তিনি।

মঙ্গলবারও ঘটে সেই একই ঘটনা। কুয়েতের বিরুদ্ধে ম্যাচে দুটি হলুদকার্ড দেখেন স্টিমাচ। প্রথম হলুদ কার্ডটি দেখেন ৬৩ মিনিটের মাথায়। দুইদলের ফুটবলারদের মধ্যে ঝগড়ার মাঝে স্টিমাচ প্রবেশ করায় হলুদ কার্ড দেখতে হয় তাকে। দ্বিতীয় হলুদ কার্ডটি দেখেন ৮০ মিনিটে। রেফারির সিদ্ধান্ত নিয়ে সেইমুহুর্তে তর্ক করায় এইম্যাচে দ্বিতীয়বারের মতো হলুদ কার্ড অর্থাৎ লাল কার্ড দেখেন তিনি।

লাল কার্ড দেখায় সেইমুহুর্তে মাঠ ছাড়তে হয় স্টিমাচকে। বাকি ম্যাচটি গ্যালারিতে বসে দেখেন তিনি। গতকাল ম্যাচে লাল কার্ড খাওয়ায় সেমিফাইনালের জন্য উপলব্ধ থাকবেন না স্টিমাচ। সেমিফাইনালে প্রতিপক্ষ হিসাবে থাকবে শক্তিশালী লেবানন, তার বিরুদ্ধে নামতে প্রধান কোচকে সাথে পাবেন না সুনীল ছেত্রীরা (Sunil Chhetri)। সেই জায়গায় দলের দায়িত্ব সামলাবেন ভারতীয় দলের সহকারী কোচ মহেশ গাওলি (Mahesh Gawli)

স্টিমাচের কোনো অংশে ভুল দেখতে পাননি সহকারী কোচ মহেশ গাওলি, তাই তার প্রতিবাদ করতে গাওলি বলেছেন, “ইগর স্টিমাচ কোনোরকম ভুল করেননি। এটা খুব খারাপ সিদ্ধান্ত ছিল, এবং আপনি যদি সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে এমন রেফারিদের ব্যাবহার করেন, তাহলে এই চ্যাম্পিয়নশিপের মান অনেকটা কমে যাবে। সাফকে এই রেফারিদের নিয়ে ভাবতে হবে, কারণ আজ অতি মানসম্পন্ন একটি খেলা ছিল ভালো দলের বিরুদ্ধে। তাদের আরও ভালোভাবে ম্যাচ নিয়ন্ত্রণ করা উচিত ছিল, কিন্তু তারা তা করেনি।”

মহেশ গাওলির কথাতে সমর্থন করতে দেখা গেছে সুনীল ছেত্রীকে, তিনি জানিয়েছেন, “রেফারিং? আমি কোনোরকম ঝামেলায় জড়াতে চাই না, যদি কোচ (মহেশ গাওলি) বলে থাকেন রেফারির সিদ্ধান্ত খারাপ, তাহলে তার কথাটা নিন।”