Vitality Blast: টি-২০ ম্যাচে ৫০০+ রান, ২৫৩ রান তাড়া করে জয় টুর্নামেন্টের হেরো দলের

ভারতের আইপিএলের মত ইংল্যান্ডের গুরুত্বপূর্ণ টুর্নামেন্ট হল ভাইটালিটি ব্লাস্ট (Vitality Blast) । গতকাল এই টুর্নামেন্টের ১০০ তম ম্যাচে সারে (Surrey) এবং মিডলসেক্স (Middlesex) মুখোমুখি হয়। এই গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে রেকর্ড রান তাড়া করে মিডলসেক্স বিজয়ী হয়।

এই দিন মিডলসেক্সের অধিনায়ক টসে জিতে প্রথমে বোলিং করার সিদ্ধান্ত নেয়। সারে প্রথম ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে বিধ্বংসী হয়ে ওঠে। ওপেনার উইল জ্যাকস (Will Jacks) ও লাওরি ইভান্স (Laurie Evans) ব্যাট হাতে রীতিমতো তান্ডব চালান। তাদের দুজনের পার্টনারশিপ ১৭৭ রান আসে। উইল জ্যাকস মাত্র ৪৫ বলে ৯৬ রানের একটি দুর্দান্ত ইনিংস খেলেন। তার সঙ্গে তাল মিলিয়ে লাওরি ইভান্স ৩৭ বলে ৮৫ রান করেন। ২০ ওভার শেষে সারে ৭ উইকেট হারিয়ে ২৫৩ রানের বিশাল লক্ষ্যমাত্রা দেয়।

দ্বিতীয় ইনিংসে মিডলসেক্সের হয়ে ওপেনিং করতে আসে অধিনায়ক স্টিফেন এসকিনাজি (Stephen Eskinazi) এবং জো ক্র্যাকনেল (Joe Cracknell)। দুজনে দুর্দান্তভাবে শুরু করলেও ক্র্যাকনেল ৩৬ রানে রান আউট হয়ে যান‌। কিন্তু স্টিফেন এসকিনাজি ব্যাট হাতে জ্বলে ওঠেন। তিনি ৩৯ বলে দুরন্ত ৭৩ রান করেন। ম্যাক্স হোলডেন (Max Holden) করেন ৩৫ বলে ৬৮ রান । এরপর রায়ান হিগিন্স (Ryan Higgins) এবং জ্যাক ডেভিসের (Jack Davies) মরিয়া চেষ্টায় মিডলসেক্স ২৫৩ রানের লক্ষ্যমাত্রায় পৌঁছে যায়। রায়ান হিগিন্স গুরুত্বপূর্ণ ২৪ বলে ৪৮ রান‌ করেন।

এটি ছিল টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের ইতিহাসে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ রান তাড়া করে জয়। মিডলসেক্স মাত্র তিন উইকেট হারিয়ে এই বিশাল রান তাড়া করে জয়ের রেকর্ড গড়ে। টুর্নামেন্টে এর আগে মিডলসেক্স ১০ টি ম্যাচে হেরে তারা জেতার জন্য মরিয়া হয়ে উঠেছিল। অন্যদিকে সারে এখনো পর্যন্ত ১২ ম্যাচে ৮ টিতে জয় লাভ করেছে।