অসুস্থতার কারণে আসতে চাননি স্টেডিয়ামে, তবে‌ শুধুমাত্র এই প্লেয়ারের অনুরোধে ছেলের খেলা দেখতে আসেন সরফরাজের পিতা

গতকাল ভারতীয় দলের জার্সিতে অভিষেক হয়েছে সরফরাজ খানের (Sarfaraz Khan)। ছেলে ভারতীয় দলে সুযোগ পেতেই আবেগপ্রবণ হতে দেখা গেছে সরফরাজের বাবা নৌশাদ খানকে (Naushad Khan)। এমনকি খুশিতে চোখে জলও দেখা গেছে তার। আর হবে না বা কেন! বছরের পর বছর ধরে সরফরাজ প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটে এমন খেলে আসার পরেও দলে জায়গা পাচ্ছিলেন না। এখন ছেলের সুযোগ হওয়াতে আনন্দ ধরে রাখতে পারছেন না তিনি।

রাজকোটে নিজের ছেলে অভিষেক ম্যাচে উপস্থিত থাকাকেও সৌভাগ্য বলে মনে করছেন তার বাবা। হয়তো এই সৌভাগ্য তার হত না। এই সৌভাগ্যের দায় তিনি ভারতীয় দলের বিধ্বংসী টি-২০ ব্যাটার সূর্যকুমার যাদবকে (Suryakumar Yadav) দিয়েছেন। আর এই অভিষেক ম্যাচেই ৬৬ বলে ৬২ রানের দুর্দান্ত ইনিংস খেলেছেন সরফরাজ। চোখের সামনে থেকে ছেলেকে দেশের হয়ে অর্ধশতরান করতে আনন্দে আত্মহারা হয়ে পড়েন সরফরাজের বাবা।

সরফরাজের বাবা সাংবাদিকদের সঙ্গে মাঠে উপস্থিত থাকার কথা বলতে গিয়ে বলেছেন, “আসলে আমি একটা ছোট অসুস্থতার কারণে ভুগছি। তাই আমার প্রাথমিক পরিকল্পনা ছিল মুম্বাইয়ে থাকার। কিন্তু সূর্যকুমার যাদব আমাকে রাজি করিয়েছিল। বলেছিল, স্যার আপনি দয়া করে ওখানে যান, এই মুহুর্তগুলি আর কোনোদিন ফিরে আসবে না। কারণ, এটি জীবনে একবারের মতোই আসে।”

এই কথাগুলি বলেই সরফরাজের বাবাকে রাজকোটে স্টেডিয়ামে যেতে উদ্ধুদ্ধ করেছিলেন সূর্যকুমার। নাহলে, হয়তো ছেলের অভিষেক ম্যাচের মুহুর্তকে মিস করতেন তিনি। ছেলেকে মাত্র ৬ বছর বয়স থেকে ক্রিকেট খেলানোর পরেও, ছেলেকে অভিষেক করতে দেখা স্বপ্নই থেকে যেত তার বাবার কাছে। এদিকে পরিবারের সামনে অভিষেক ম্যাচে ওরকম ইনিংস খেলতে পেরে খুব খুশি সরফরাজ নিজেও।