আজীবন বোলিং থেকে ব্যান মনীশ পান্ডে, সতর্কবার্তা সাকারিয়াকে, বিকৃত বোলিং অ্যাকশনের জন্য BCCI-এর টার্গেট ৯ প্লেয়ার

বিসিসিআই (BCCI) ক্রিকেটের পরিকাঠামো উন্নতি করার‌ পাশাপাশি ক্রিকেটারদের গুনগতমান বজায় রাখার চেষ্টা করে। তাই আইপিএলের (IPL) মতো ফ্রাঞ্চাইজি লিগ খুব কম সময়ে বিশ্ব ক্রিকেটে এত জনপ্রিয়তা লাভ করেছে এবং এই টুর্নামেন্ট থেকে একাধিক সফল ক্রিকেটার উঠে আসছেন। এবার সন্দেহজনক বোলিং অ্যাকশন নিয়ে কড়া পদক্ষেপ নিলো বিসিসিআই।

বিশ্ব ক্রিকেটের ইতিহাসে একাধিকবার বোলিং অ্যাকশন নিয়ে বোলাররা বিতর্কে জড়িয়েছেন। সুনীল নারিন (Sunil Narine), মোহাম্মদ হাফিজ (Mohammad Hafeez) সহ একাধিক তারকা ক্রিকেটার বোলিং অ্যাকশনের জন্য আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে নির্বাসিত হয়েছিলেন। এবার আইপিএলের আগে বিসিসিআই বোলিং অ্যাকশনের জন্য মোট ৭ জন ক্রিকেটারদের নির্বাসিত না করলেও তার বিরুদ্ধে অভিযোগ এনেছে।

তবে এই তালিকায় চেতন সাকারিয়ার (Chetan Sakariya) নামটি বর্তমানে বিতর্কের সৃষ্টি করেছে। সৌরাষ্ট্র ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের (SCA) কর্মকর্তারা তালিকায় চেতন সাকারিয়ার নাম নিয়ে বিসিসিআই-এর সঙ্গে আলোচনা করলে এটি অনিচ্ছাকৃত ভুল বলে জানা গেছে। এই বিষয়ে সৌরাষ্ট্র ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি জয়দেব শাহ (Jaydev Shah) বলেন, ” এটি এক ধরণের ভুল বুঝাবুঝি এবং একটি ত্রুটি ছিলো। চেতনকে কখনই ডাকা হয়নি এবং তিনি সেই তালিকায় নেই।”

চেতন সাকারিয়া ছাড়া নির্বাসিত না করলেও বিসিসিআই তনুশ কোটিয়ান, রোহান কুন্নুম্মল, চিরাগ গান্ধী, সালমান নিজার, সৌরভ দুবে এবং অর্পিত গুলেরিয়ার মতো বোলারদের বিপক্ষে অভিযোগ এনেছে। অন্যদিকে উল্লেখযোগ্যভাবে প্রাক্তন কলকাতা নাইট রাইডার্স (Kolkata Knight Riders) এবং দিল্লি ক্যাপিটালসের তারকা মণীশ পান্ডেকে (Manish Pandey) এল শ্রীজিতের সঙ্গে বোলিং অ্যাকশনের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এই ২ ক্রিকেটার আর বোলিং করতে পারবেন না।