Women’s Emerging Asia Cup: রিজার্ভ ডেতেও পরিত্যক্ত ভারত-শ্রীলঙ্কার ম্যাচ, না‌ খেলেই ফাইনালে পৌঁছল ভারত

এই বছর মহিলাদের এমার্জিং এশিয়া কাপে Womens Emerging Asia Cup) সবচেয়ে বড়ো বাঁধা হয়ে দাঁড়িয়েছে বৃষ্টি। এই টুর্নামেন্টে বৃষ্টির জন্য লিগ পর্বে ৮০ শতাংশ ম্যাচ খেলা সম্ভবই হয়নি। এবার মহিলা এমার্জিং এশিয়া কাপের প্রথম সেমিফাইনাল ভারত বনাম শ্রীলঙ্কা ম্যাচ বৃষ্টির জন্য পরিত্যক্ত হয়ে যাওয়ায় নির্ধারিত দিনের পরের দিনও অর্থাৎ আজকেও বৃষ্টির জন্য খেলা সম্ভব হয়নি।

ইতিমধ্যেই মহিলা এমার্জিং এশিয়া কাপে ভারতীয় মহিলা ‘A’ দল অসাধারণ পারফরমেন্স করেছে। ১৩ জুন এই টুর্নামেন্টে ভারত প্রথম আয়োজক দেশ হংকং-এর মুখোমুখি হয়। এই ম্যাচে ভারতীয় মহিলা ‘A’ দল অসাধারণ পারফরমেন্স করে। তারা হংকং-কে মাত্র ৩৪ রানে অলআউট করে দেয়। এই ম্যাচে শ্রেয়াঙ্কা পাটিল (Shreyanka Patil) একাই গুরুত্বপূর্ণ ৫ টি উইকেট তুলে নেন। এছাড়াও বাংলার মেয়ে তিতাস সাধু (Titas Sadhu) ২ ওভার বল‌ করে একটি উইকেট সংগ্রহ করেন। ভারত এই ম্যাচ ৯ উইকেটে হংকং -কে হারিয়ে দেয়।

এরপর গ্রুপ লিগের গুরুত্বপূর্ণ দ্বিতীয় ম্যাচে নেপালের বিপক্ষে ও তৃতীয় ম্যাচে পাকিস্তানের বিপক্ষে বৃষ্টির কারণে একটি বল‌ও খেলা সম্ভব হয়নি। তাই গ্রুপ লিগের শীর্ষে থেকে সেমিফাইনালে উঠে যায় ভারতীয় দল। গতকাল মহিলা এমার্জিং এশিয়া কাপের প্রথম সেমিফাইনালে ভারত এবং শ্রীলঙ্কা মুখোমুখি হওয়ার কথা থাকলেও বৃষ্টির কারণে ম্যাচটি পরিত্যক্ত হয়ে যায়। তবে আজ সংরক্ষিত দিন হিসাবে আবারও ভারত এবং শ্রীলঙ্কা সেমিফাইনাল খেলতে নামে। কিন্তু বাঁধা হয়ে দাঁড়ায় সেই বৃষ্টি ফলে টুর্নামেন্টের গুরুত্বপূর্ণ প্রথম সেমিফাইনাল খেলা সম্ভব হয়নি।

ভারত গ্রুপ লিগের পয়েন্ট টেবিলে শীর্ষে থাকায় সেমিফাইনাল না খেলেই সরাসরি তারা ফাইনালে পৌঁছে গেলো। অন্যদিকে দ্বিতীয় সেমিফাইনাল বাংলাদেশ বনাম পাকিস্তান ম্যাচও বৃষ্টির কারণে গতকাল খেলায় একটি বলও গড়ায়নি এবং আজও নির্ধারিত দিনে ম্যাটি হওয়া সম্ভব বলে মনে হচ্ছে ‌না। ২১ জুন হংকং-এ মহিলা এমার্জিং এশিয়া কাপের ফাইনাল খেলাটিও সম্পূর্ণরূপে সফল হওয়ার ক্ষেত্রেও প্রশ্নচিহ্ন উঠছে। সেই ক্ষেত্রে তখন টুর্নামেন্টে ফাইনালে পৌঁছানো দুই দলকেই বিজয়ী হিসাবে ট্রফি ভাগাভাগি করে নিতে হবে।

হংকং-এর বার্ষিক বৃষ্টিপাতের ৮০ শতাংশ মে থেকে আগস্টের মধ্যে হয়ে থাকে। এই সময় সপ্তাহে সাত দিনের মধ্যে প্রায় চার দিনেই বৃষ্টির সম্ভাবনা থাকে। এইরকম আবহাওয়ার কথা জানা থাকলেও কেনো এশিয়ান ক্রিকেট বোর্ড এই সময় হংকং-এ এরকম গুরুত্বপূর্ণ টুর্নামের আয়োজন করার সিদ্ধান্ত নিলো তা নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন ক্রিকেট প্রেমী থেকে বিশেষজ্ঞরা।