এবার থেকে বিশ্বের প্রতিটি টি-২০ লিগের একাদশে মাত্র এই সংখ্যক বিদেশি খেলতে পারবে, কড়া নিয়ম ICC-এর

বছরের পর বছর ক্রিকেটের তিনটি ফরম্যাটের মধ্যে বাকি দুটি ফরম্যাটকে পেছনে ফেলে ভক্তদের মনে জায়গা করে নিচ্ছে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট (T-20 Cricket)। কম ওভার, কম সময়, অনেক রান এবং বাকি ফরম্যাটের তুলনায় অনেকটা জাঁকজমকপূর্ণ হওয়ায় টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট এখন সবার প্রিয় হয়ে উঠেছে। কিন্তু দিনের পর দিন টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটার অধিপত্য ধীরে ধীরে ক্রিকেটের বাকি দুটি ফরম্যাটকে অন্ধকারে ফেলে দিচ্ছে। বিশেষ করে টেস্ট ক্রিকেটের অস্তিত্ব সংকটময় দেখাচ্ছে।

যত সময় এগোচ্ছে বিশ্ব ক্রিকেটে একের পর এক নতুন নতুন টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টের উদ্ভব হচ্ছে। আর সেই টুর্নামেন্ট গুলিতে প্রতিটি দেশের বড় বড় খেলোয়াড়দের নেওয়ার জন্য ফ্রাঞ্চাইজি গুলি মোটা অংকের টাকার প্রলোভন দেখাচ্ছে প্লেয়ারদের। সেই টাকার লোভে অনেক বড় বড় প্লেয়াররা নিজেদের দেশ ছেড়ে সেই টি-টোয়েন্টি লিগগুলোতে অংশগ্রহণ করছেন। দিনশেষে এতে ক্ষতি হচ্ছে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের।

দীর্ঘদিন চুপ থাকার পর অবশেষে এই বিষয়টির উপর দৃষ্টিপাত করেছে আইসিসি (ICC)। আন্তর্জাতিক এবং টেস্ট ক্রিকেটের অস্তিত্ব বজায় রাখতে এক কড়া নিয়ম নিয়ে এলো আইসিসি। এখন থেকে বিশ্বের যে কোন টি-টোয়েন্টি লিগেই দলগুলি তাদের একাদশে চারটের বেশি বিদেশি খেলাতে পারবে না।

আইসিসির এই নতুন নিয়মে আইপিএল এবং বিগ ব্যাশ লিগের তেমনভাবে কোন সমস্যা না হলেও, সমস্যা হতে পারে নতুন নতুন কয়েকটি টি-টোয়েন্টি লিগের, যারা টিআরপির জন্য একাদশে অনেক বেশি বিদেশি খেলানোর নিয়ম রেখে থাকে। ইন্টারন্যাশনাল লিগ টি-টোয়েন্টি (ILT20), গ্লোবাল টি২০ কানাডা (GT20 Canada), মেজর লিগ ক্রিকেট (Major League Cricket), এই সমস্ত লীগ গুলিতে একাদশে বিদেশি খেলোয়াড়দের সংখ্যা নির্দিষ্ট ছিল না। কিন্তু এবার থেকে ক্রিকেট বিশ্বের প্রতিটি টি-টোয়েন্টি লিগের প্রতিটি ফ্রাঞ্চাইজিকেই আইসিসির নতুন নিয়মের পালন করতে হবে।