হাসি-কান্নার মধ্য দিয়ে IPL-কে বিদায় জানালেন রায়ডু, সতীর্থরা প্রকাশ করলেন অনেক অজানা ঘটনা

রবিবার আইপিএল (IPL) ফাইনালের আগেই আম্বাতি রায়ডু (Ambati Rayudu) জানিয়ে দিয়েছিলেন আইপিএল জীবনে এটাই তার শেষ ম্যাচ হতে চলেছে। তিনি ক্রিকেট জীবনে অনেক ওঠা পড়ার মধ্যে দিয়ে গেছেন। গতকাল ফাইনাল ম্যাচে চেন্নাইয়ের হয়ে আইপিএল শিরোপা জেতার পর আবেগপ্রবণ হয়ে যান রায়ডু।

গতকাল গুজরাটের নরেন্দ্র মোদী স্টেডিয়ামে আইপিএলের ফাইনালে গুজরাট টাইটান্সের (GT) বিপক্ষে চেন্নাই সুপার কিংস (CSK) দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে এক সময় চাপের মধ্যে পড়ে যায়। সেই সময় রায়ডুর গুরুত্বপূর্ণ ৮ বলে ১৭ রানের ইনিংস চেন্নাইয়ের জয়ের রাস্তা মসৃণ করে। গুজরাটের অন্যতম সেরা বোলার মোহিত শর্মার ওভারে ২ টি ছয় ও ১ টি‌ চার মারেন তিনি। শেষে এই বছর আইপিএলের ট্রফিটি অধিনায়ক ধোনি (MS Dhoni) সন্মান জানিয়ে প্রথমে রায়ডু এবং জাদেজাকে (Ravindra Jadeja) নিতে বলেন।

ম্যাচ শেষে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে রায়ডু বলেন, “হ্যাঁ, একটা রূপকথার সমাপ্তি ঘটলো। আমি এর চেয়ে বেশি কিছু চাইতে পারতাম না। এই যাত্রাপথ সত্যিই অবিশ্বাস্য। এইরকম দুর্দান্ত দলে খেলার জন্য আমি ভাগ্যবান। আমি এবার বাকি জীবন আনন্দে কাটিয়ে দিতে পারি। আমি খুব খুশি যে গত ৩০ বছরের সমস্ত কঠোর পরিশ্রম এইরকম গুরুত্বপূর্ণ রাতে শেষ হয়েছে। আমি সত্যিই এই মুহূর্তে দাঁড়িয়ে আমার পরিবারকে ধন্যবাদ জানাতে চাই, বিশেষভাবে আমার বাবাকে।”

ধোনি তার সতীর্থের শেষ ম্যাচে তার বিষয়ে বলেন,” রায়ডুর একটি বিশেষ বিষয় হলো ও যখন দলে থাকে আমি কখনও ফেয়ার প্লে অ্যাওয়ার্ড জিততে পারিনি। ও জয় উদযাপন করতে আগেই মাঠে নেমে পড়ে। আমরা ভারতের হয়ে একসাথে খেলেছি। আমরা একসাথে এখনোও একটি দলের অংশ। রায়ডু এমন একজন যে স্পিন এবং পেস ভালো খেলে। সেও আমার মতো ফোন খুব একটা ব্যবহার করে না। আমি আশা করি রায়ডু এই জীবনের পরবর্তী পর্বটি উপভোগ করবে।” দীপক চাহার বলেন – ” রায়ডু আমায় সবসময় বলত আমি ফাইনাল‌ জেতাবো, আমি ফাইনাল জেতাবো। আজ‌ সেটাই হল।”